হার্ড ডিস্ক কি এবং একটি হার্ড ডিস্কের বাহ্যিক এবং অভ্যন্তরীণ গঠন সম্পর্কে আলোচনা।

হার্ড ডিস্ক কি এবং একটি হার্ড ডিস্কের বাহ্যিক এবং অভ্যন্তরীণ গঠন সম্পর্কে আলোচনা।

হার্ড ডিস্কঃ 

হার্ড ডিস্ক অ্যালুমিনিয়াম সঙ্কর ধাতুর তৈরি গোলাকৃতি কতগুলো পাতের সমন্বয়ে গঠিত। পাতগুলোর উভয় পৃষ্ঠে চৌম্বক পদার্থের প্রলেপ দেয়া থাকে এবং একটি ঘুর্ণায়মান দণ্ডের সাথে একটি একটি করে পর পর সংযুক্ত হয়ে একটি ডিস্ক প্যাক গঠন করে। 

ডিস্ক প্যাকটি আবদ্ধ অবস্থায় একটি ডিস্ক ড্রাইভের উপর বসানো থাকে। এই ধরনের ডিস্ক ড্রাইভকে উইঞ্চেস্টার ডিস্ক ড্রাইভ বলা হয়। 

একটি কম্পিউটারের যাবতীয় তথ্য এই হার্ড ডিস্কের মধ্যেই জমা করে রাখা হয়। হার্ড ডিস্কের তথ্য ধারণ ক্ষমতা অনেক বেশি। 

বর্তমান পিসিগুলোতে হার্ড ডিস্কের তথ্য ধারণ ক্ষমতা ২ টেরাবাইট পর্যন্ত হয়। হার্ড ডিস্ক অনেক দ্রুতগতি সম্পন্ন এবং এর ড্রাইভ স্পিড 3600 r.p.m হতে 7200 r.p.m পর্যন্ত হয়ে থাকে। 

হার্ড ডিস্কের বাহ্যিক গঠন সম্পর্কে বর্ণনাঃ

একটি হার্ড ডিস্কের অনেকগুলো বাহ্যিক অংশ রয়েছে। এগুলোর নিম্নরূপঃ 

একচুয়েটরঃ 

একটি হার্ড ডিস্কের এক প্রান্তে একচুয়েটর হেডের সাথে সংযুক্ত থাকে। ডাঁটা রিড বা রাইট করার জন্য একচুয়েটর আর্ম রিড/রাইট হেডকে প্লেটারে মুভ করায়। 

হেড একচুয়েটরঃ

স্পেসিফিক ট্রাক এবং সেক্টরের সাথে রিড রাইট হেডগুলোকে যথাযথভাবে অবস্থান করার ক্ষেত্রে একচুয়েটর হেড একচুয়েটর আর্মকে প্লেটারের উপর দিয়ে নিয়ে যায়। 

প্লেটারে সংরক্ষিত তথ্যগুলোর মধ্যে যেগুলো একচুয়েটর হেডের কাছাকাছি থাকে সেখান থেকে রিড রাইড করার সময় একচুইয়েটর হেডকে যথাযথ অবস্থানে রেখে এই কার্য সমাধান করার বিষয়টি বেশ কঠিন ও জটিল। একচুয়েটরের স্পিড সরাসরি হার্ড ডিস্কের এক্সেস স্পিডের উপর নির্ভর করে। 

প্লেটারঃ 

গ্লাস সাবস্ট্রেট অথবা অ্যালুমিনিয়াম ধাতুর মিশ্রণে তৈরি চৌম্বকীয় পদার্থ দ্বারা আবৃত ডিস্ক হচ্ছে প্লেটার যা ডাঁটা স্টোর করে। 

প্লেটারের এনকোডেড এরিয়াতে ফাইলগুলো ম্যাগনেটিকেলি স্টোর করে রাখা হয়। একটি ফাইল বিভিন্ন প্লেটারের বিভিন্ন এরিয়াতে ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকতে পারে। 

প্লেটারের সংখ্যা যত বেশি হবে হার্ড ডিস্কের ধারণ ক্ষমতাও তত বেশি হবে যদিও এটি নির্ভর করে ডিস্কের প্লেটারের ডেনসিটির উপর। প্লেটারের ঘূর্ণ্ন গতি প্রতি মিনিটে কয়েক হাজার যা একটি বৈদ্যুতিক মোটর দ্বারা পরিচালিত হয়। 

স্পিন্ডল মোটরঃ 

একটি নির্দিষ্ট মাত্রার স্পিডের ক্ষেত্রে প্লেটারের ঘুর্ণনের বেপারটি সম্পূর্ণ স্পিন্ডলের উপর নির্ভর করে স্পিন্ডলের ভিতর বৈদ্যুতিক মোটর বিল্ট-ইন থাকে অথবা স্পিন্ডলের নিচে সরাসরিভাবে স্থাপন করা হয়।

রিড-রাইট হেডঃ 

এগুলো একচুয়েটর আর্মের শেষে যুক্ত থাকে এবং হার্ড ডিস্কের প্রতিটি প্লেটারের উপরে ও নিচে অবস্থান করে। রিড/রাইট হেড প্লেটার থেকে এক ইঞ্চির ত্রিশ ভাগের এক ভাগ দূরত্বে অবস্থান করে এবং ডাঁটা রিড রাইট করে। 

প্লেটার সারফেসের ম্যাগনেটিক ফিল্ডের কণিকাসমূহ এলাইন করে এই হেড প্লেটারে ডাঁটা রাইট করে এবং কণিকাসমূহের বিপরীত ধর্মীতা শনাক্ত করে ডাঁটা রিড করে। 

লজিক কার্ডঃ 

হার্ড ডিস্কের নিচের প্রিন্টেড সার্কিট বোর্ডটিই হলো লজিক কার্ড। এটি মাইক্রোপ্রসেসর এবং মেমোরি ধারণ করে। 

লজিক কার্ডই মূলত স্পিন্ডল, একচুয়েটর, ক্যাশ মেমোরি, রিড রাইট অপারেশন, পাওয়ার ম্যানেজমেন্ট ইত্যাদি কাজসহ হার্ড ডিস্ককে নিয়ন্ত্রণ করে লজিক কার্ড, অপারেটিং সিস্টেম কর্তৃক পরিচালিত কমান্ডসমূহ হার্ড ড্রাইভের কন্ট্রোলারের মাধ্যমে গ্রহণ করে। 

কম্পিউটার যখন হার্ড ডিস্ক থেকে কোনো তথ্যের জন্য রিকোয়েস্ট করে, লজিক কার্ড তখনে এটি প্রসেস করে এবং তাৎক্ষনিকভাবে তা ট্রান্সফার করার জন্য একচুয়েটর আর্মকে প্লেটারে মুভ করার জন্য চেষ্টা করে। 

হার্ড ডিস্কের অভ্যন্তরীণ গঠন সম্পর্কে বর্ণনাঃ

একটি হার্ড ডিস্কের অভ্যন্তরীণ লে-আউট তিনটি অংশে বিভক্ত। এগুলোর বর্ণনা নিচে দেয়া হলোঃ 

ট্রাকঃ 

প্রতিটি হার্ড ডিস্কের পৃষ্ঠ অনেকগুলো এককেন্দ্রিক বৃত্তে ভাগ করে উহাতে তথ্য সংরক্ষণ করা হয়। এসব বৃত্তকে ট্রাক বলে। 

সেক্টরঃ 

ডিস্কের প্রতিটি ট্রাককে আবার কয়েকটি সমান ভাগে ভাগ করা হয়। এরূপ একেকটি ভাগকে সেক্টর বলা হয়। ডিস্কের সকল সেক্টরের ডাঁটা সংরক্ষণ ক্ষমতা সমান যার পরিমাণ হলো ৫১২ বাইট।  

সিলিন্ডারঃ 

প্রত্যেক ডিস্কের অনুরূপ ট্রাকগুলিকে অর্থাৎ ডিস্ক প্যাকের সমস্ত পৃষ্ঠতলে নির্দিষ্ট নম্বরযুক্ত ট্রাকগুলিকে একসাথে সিলিন্ডার বলা হয়। 

1 Comments

  1. পড়ে ভালো লাগলো ভাই,, অনেক কিছু জানতে পারছি আপনার এই পোস্ট এর মাধ্যমে। ধন্যবাদ ভাই

    ReplyDelete
Previous Post Next Post